এইচ টি ইমামের মৃত্যুতে দিনাজপুরের সরকারি কৌঁসুলি (জিপি) নূরুল ইসলামের শোক

দিনাজপুর প্রতিনিধিঃ আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার রাজনৈতিক উপদেষ্টা হোসেন তৌফিক ইমাম (এইচ টি ইমাম)-এর মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন দিনাজপুর জেলার প্রধান সরকারি কৌঁসুলি জিপি মুহম্মদ নূরুল ইসলাম ।

আজ বৃহস্পতিবার (৪ মার্চ) এক শোকবার্তায় জিপি নূরুল ইসলাম বলেন, ওয়ান ওয়ান-ইলেভেনের সময় এইচ টি ইমাম প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মুক্তির পক্ষে এবং দেশে গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারে উল্লেখযোগ্য ভূমিকা রেখেছেন।

শোকবার্তায় তিনি আরও বলেন, এইচ টি ইমাম তাঁর বর্ণাঢ্য কর্মজীবনের প্রতিটি ধাপে পুরোমাত্রায় একজন দেশপ্রেমিক মানুষের ছাপ রেখেছেন। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ডাকে সাড়া দিয়ে তিনি ১৯৭১ সালে পাকিস্তান সিভিল সার্ভিসের চাকরিতে ইস্তফা দেন এবং প্রিয় মাতৃভূমি বাংদেশের স্বাধীনতার পক্ষে কাজ করেন। তিনি প্রবাসী বাংলাদেশ সরকার পরিচালনায় গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখেন এবং স্বাধীন বাংলাদেশের প্রথম মন্ত্রিপরিষদ সচিব হিসেবে তাৎপর্যপূর্ণ দায়িত্ব পালন করেন।

জিপি মুহম্মদ নূরুল ইসলাম আরো বলেন, কর্তব্যনিষ্ঠার ধারাবাহিকতায় এইচ টি ইমাম প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জনপ্রশাসন উপদেষ্টা এবং রাজনৈতিক উপদেষ্টা হিসেবে অসামান্য দক্ষতা ও নিষ্ঠার সঙ্গে দায়িত্ব পালন করেছেন। মহান মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বিকাশ ও সমুন্নত রাখতে তিনি আজীবন কাজ করেছেন। তিনি তাঁর কর্মের মাঝেই দেশের মানুষের হৃদয়ে সমুজ্জ্বল সত্ত্বায় বেঁচে থাকবেন।

শোকবার্তায় তিনি মরহুমের রুহের মাগফিরাত কামনা করেন এবং শোকসন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান।

গতকাল বৃহস্পতিবার (৩ মার্চ) রাতে ঢাকার সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান এইচ টি ইমাম। তাঁর বয়স হয়েছিল ৮২ বছর। তিনি ফুসফুস, কিডনি, হার্টের রোগসহ বার্ধক্যজনিত নানা জটিলতায় ভুগছিলেন। প্রায় মাসখানেক ধরে হাসপাতালে ভর্তি ছিলেন তিনি।