১৪ টি চোরাই সিএনজি অটোরিক্সা জব্দ গ্রেফতার-১৩

এস, এম, মনির হোসেন জীবন- র‍াজধানীর মিরপুরের দারুস সালাম এলাকায় অভিযান চালিয়ে আন্তঃ জেলা সিএনজি অটোরিক্সা চোরাকারবারী সংঘবদ্ধ চক্রের ১৩ সদস্যকে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব।

এসময় তাদের নিকট থেকে ১৪ টি চোরাই সিএনজি অটোরিক্সা জব্দ করা হয়।

র‍্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‍্যাব-৪) এর সহকারী পুলিশ সুপার (মিডিয়া অফিসার) মোঃ জিয়াউর রহমান চৌধুরী আজ শুক্রবার এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‍্যাব-৪ জানতে পারে যে, ঢাকা মহানগরীর দারুস সালাম থানার মাজার রোডস্থ সিএনজি মালামাল বিক্রয়ের দোকানের পিছনের গ্যারেজে কিছু সংঘবদ্ধ চোরাকারবারী সদস্য চুরির উদ্দেশ্যে অবস্থান করছে। পরে এমন সংবাদের ভিত্তিতে র‍্যাব-৪ এর একটি অভিযানিক দল বৃহস্পতিবার দিবাগত রাতে দারুস সালাম থানার মাজার রোডস্থ উক্ত সিএনজি মালামাল বিক্রয়ের দোকানের পিছনের গ্যারেজে পৃথক পৃথক অভিযান চালিয়ে চোরাইকৃত ১৪ টি সিএনজিসহ সংঘবদ্ধ চোরাকারবারী চক্রের ১৩ জন সদস্যকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়।

গ্রেফতারকৃতরা হচ্ছে – মোঃ মাহবুব আলম (৪৫), জেলা- কুমিল্লা, মোঃ নুরনবী শেখ (৩৮), জেলা- সিরাজগঞ্জ. মোঃ বাশার (২৪), জেলা- কুমিল্লা, মোঃ বেলাল হোসেন (১৯), জেলা- চট্টগ্রাম, মোঃ আল আমিন (২৯), জেলা- মাগুড়া,মোঃ বাদল (১৯), জেলা-ঢাকা
মোঃ বেল্লাল হোসেন মন্ডল (৪৬), জেলা- বগুড়া, মোঃ শাওন (২০), জেলা- নরসীংদী
কাজী মোঃ আশরাফ উদ্দিন (৬০), জেলা- মুন্সিগঞ্জ, মোঃ সোহরাব (৩৫), জেলা- নারায়নগঞ্জ, মোঃ আজাহার (৪৫), জেলা- ভোলা, অন্তর মালাকার (৩২), জেলা- বাগেরহাট, নুর সায়েদ ওরফে রুবেল (২৬), জেলা- ঝালকাঠি।

র‍্যাব-৪ এর সহকারী পরিচালক মোঃ জিয়াউর রহমান চৌধুরী আরও জানান, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেফতারকৃত আসামীরা দীর্ঘদিন ধরে সিএনজি চুরির ঘটনার সাথে জড়িত মর্মে স্বীকারোক্তি প্রদান করেছে।

জিজ্ঞাসাবাদে আরও জানা যায়, তারা সংঘবদ্ধ আন্তঃ জেলা চোরাকারবারী চক্রের
সাথেও জড়িত। ধৃত দুর্ধর্ষ চক্রটি পরস্পর যোগসাজোশে দীর্ঘদিন যাবত ঢাকা, মানিকগঞ্জসহ ঢাকার নিকটবর্তী বিভিন্ন স্থানে গিয়ে সিএনজি চুরি করে রং পরিবর্তন করে ভূয়া নাম্বার প্লেট লাগিয়ে কমদামে বিক্রি করে আসছিলো।
এবিষয়ে গ্রেফতারকৃত আসামীর বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন আছে।