বাড্ডা ও বনানীতে র‍্যাবের পৃথক অভিযানে দুই শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার

মনির হোসেন জীবন ঃ র‍াজধানীর বাড্ডা ও বনানী এলাকায় পৃথক অভিযান চালিয়ে বিপুল পরিমাণ বিয়ারসহ
শীর্ষ  দুই মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করেছে
র‍্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‍্যাব)।
এসময়  ধৃত আসামীদের  নিকট থেকে  ১৫১২ ক্যান বিয়ার ও ২টি প্রাইভেটকার উদ্ধার মুলে  জব্দ করা হয়।
গ্রেফতারকৃতরা হচেছ- মোঃ মাসুম ওরফে লিমন (৩২) ও মোঃ মনির হোসেন (৩৪)।
এলিট ফোর্স র‍্যাব-৩ এর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার বীণা রানী দাস, পিপিএম (সেবা) আজ বৃহস্পতিবার  এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন।
তিনি জানান, বুধবার দিবাগত রাত সাড়ে ৩ টার দিকে  রাজধানীর বনানী থানার এয়ারপোর্ট রোড, মহাখালী এলাকায় চেকপোষ্ট স্থাপন করে ৫৫২ ক্যান বিয়ার সহ মোঃ মাসুম ওরফে লিমন (৩২) নামে এক মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করে।
এসময় একটি প্রাইভেটকার জব্দ করা হয়।
ধৃত আসামী মোঃ মাসুম ওরফে লিমনের বাড়ি নরসিংদী জেলায়।
র‍্যাব-৩ এর সহকারী পরিচালক (মিডিয়া)
 বীণা রানী দাস আরও জানান,   র‍্যাব-৩ এর  অপর একটি দল গোয়েন্দা সংবাদের ভিত্তিতে জানতে পারে যে, কতিপয় মাদক ব্যবসায়ী চক্রের সদস্যরা এয়ারপোর্ট থেকে  মহাখালী হয়ে মগবাজার অভিমুখী একটি প্রাইভেট কারের মাধ্যমে এবং গুলশান-১ থেকে  বাড্ডা থানার গুদারাঘাট বাজার হয়ে গুলশান-২ অভিমুখী আরেকটি প্রাইভেট কারের মাধ্যমে নেশা জাতীয় অবৈধ মাদকদ্রব্য বিদেশী বিয়ার ক্যান এর চালান আসছে। পরে এমন  সংবাদের ভিত্তিতে র‍্যাব-৩ এর  পৃথক দুটি দল বুধবার দিবাগত রাত সাড়ে  ১০ টায় রাজধানীর মধ্যবাড্ডা, গুদারাঘাট বাজার এলাকায় চেকপোষ্ট স্থাপন করে ৯৬০ ক্যান বিয়ার  মোঃ মনির হোসেন (৩৪) নামে এক মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করে।
এসময় একটি প্রাইভেটকার উদ্ধার করা হয়।
ধৃত আসামী মোঃ মনির হোসেনের বাড়ি জেলা-নারায়নগঞ্জ।
প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেফতারকৃত আসামীরা তাদের কৃতকর্মের বিষয়টি স্বীকার করেছে। এছাড়া তারা দীর্ঘদিন যাবৎ এভাবে মাদক ব্যবসা করে আসছে বলে জানায়।
র‍্যাব-৩ এর এএসপি  বীণা রানী দাস  জানান, পৃথক এঘটনায় আসামিদের বিরুদ্ধে  রাজধানীর বনানী ও বাড্ডা থানায় পৃথক দুটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।