রাজধানীর রামপুরা ও কেরানীগঞ্জ থেকে ১৮ জুয়াড়ি গ্রেফতার

এস, এম,মনির হোসেন জীবনঃ রাজধানীর রামপুরা ও কেরানীগঞ্জে পৃথক দুটি এলাকায় অভিযান চালিয়ে ১৮ জুয়াড়ি গ্রেফতার করেছে র‌্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)।

এসময় তাদের নিকট থেকে খোলা অবস্থায় ৩১২ টি জুয়া খেলার কার্ড (তাস), ২০ টি মোবাইল ফোন ও নগদ- ২৯ হাজার ৮০০ টাকা উদ্ধার করা হয়।

র‌্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব-১০) এর কমান্ডিং অফিসার (অধিনায়ক) মাহফুজুর রহমান বিপিএম আজ বুধবার এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

র‌্যাব-১০ এর এএসপি (মিডিয়া) এনায়েত কবীর সোয়েব আজ বুধবার বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, মঙ্গলবার দিবাগত রাত সোয়া ১১ টার দিকে র‌্যাব-১০ এর অপর একটি আভিযানিক দল রাজধানীর রামপুরা থানার পূর্ব রামপুরা এলাকায় অভিযান চালিয়ে জুয়ার আসর থেকে জুয়া খেলা অবস্থায় ৮ জন জুয়াড়িকে গ্রেফতার করে।

গ্রেফতারকৃত ব্যক্তিরা হচেছ- সুমন মিয়া (৩৮), কাজী আল আমিন (৪৬), মোঃ টুকু মিয়া (৫৪), মোঃ রাশিদুল ইসলাম (৩৬), মোঃ জাকির হোসেন (৪৪), মীর রুহুল আমিন (৫০), মোঃ স্বপন মিয়া (৩৮) ও মোঃ গিয়াস উদ্দিন (৩৯)। এসময় তাদের নিকট থেকে খোলা অবস্থায় ১৫৬ টি জুয়া খেলার কার্ড (তাস), ১০ টি মোবাইল ফোন ও নগদ- ২৭ হাজার ৩০০ টাকা টাকা উদ্ধার করা হয়।

র‌্যাব-১০ সূএে জানা যায়, এছাড়া একই দিন রাত পৌনে ১১ টার দিকে র‌্যাব-১০ এর একটি আভিযানিক দল ঢাকা জেলার কেরানীগঞ্জ মডেল থানার ব্রাক্ষণকিত্তা ঘোসপাড়া এলাকায় একটি জুয়ার আসরে অভিযান চালিয়ে জুয়া খেলা অবস্থায় ১০ জন জুয়াড়িকে গ্রেফতার করে।

গ্রেফতারকৃত ব্যক্তিরা হচ্ছে – মোঃ হামেদ (৩৫), আব্দুল মাজেদ শেখ (৪২), মোঃ হানিফ (২৪), মোঃ মোজাম্মেল (২০), আব্দুল সালাম শেকদির (৩০), মোঃ আল আমিন হোসেন মোল্লা (২২), মোঃ রিপন (৩০), মোঃ হান্নান (১৮), মোঃ বাবুল মোল্লাা (৪৭) ও শামীম শেখ (২২) । এসময় তাদের নিকট থেকে খোলা অবস্থায় ১৫৬ টি জুয়া খেলার কার্ড (তাস), ১০ টি মোবাইল ফোন ও নগদ- ২ হাজার ৫০০ টাকা উদ্ধার করা হয়।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায়, গ্রেফতারকৃত ব্যক্তিরা পেশাদার জুয়াড়ি। তারা বেশ কিছুকিন যাবৎ একে অন্যের সাথে জুয়া খেলে সমাজে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করছে এবং জুয়া খেলার মাধ্যমে নিজেদের সর্বস্ব হারাচ্ছে বলে জানা যায়। এবিষয়ে গ্রেফতারকৃত ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।