দুস্থ ও গরিব মানুষের মাঝে মাস্ক, খাবার ও বস্ত্র বিতরণ করলো ‘অরি’

এস, এম, মনির হোসেন জীবন – বিশ্বব্যাপী বৈশিক মহামারি করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) প্রাদু’ভাব চলাকালে সমাজের অসহায়, দুস্থ, গরিব ও মেহনতি মানুষের মাঝে মাস্ক, বিভিন্ন ধরনের খাবার ও বস্ত্র বিতরণ করেছেন একটি বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা “এইড টু আন্ডার প্রিভিলেজড রিহ্যাবিলিটেশন এন্টিটিভ (অরি)”।

বুধবার দুপুরে রাজধানীর বিমানবন্দর রেল স্টেশনের পার্কিং ও ক্যান্টনমেন্টের কালশী পৃথক দুটি স্থানে এসব এান সামগ্রী বিতরন করা হয়।

বেসরকারী উন্নয়ন সংস্হা (অরি)’র সাধারণ সম্পাদক সাহেনা পারভিন পূনী’ উপস্থিত থেকে প্রায় এক হাজার লোকের মধ্যে এসব খাদ্য ও পন্যসামগ্রি বিতরন করেন।
তার মধ্যে ছিল ৬ শতাধিক মাস্ক, ৫শ প্যাকেট খাবার, ৪শ শাড়ি, লুঙ্গি, পাঞ্জাবী ও থ্রি পিস বিতরণ করেন।

সাহেনা পারভিন পূনী’বলেন, শুধু করোনার কারণে নয়, আমরা দীর্ঘ ৫ থেকে ৬ বছর ধরে সমাজের গরীব ও অসহায় মানুষের মাঝে বিভিন্ন ধরনের খাবার ও বস্ত্র সামগ্রী বিতরণ করে আসছি।

তিনি আরও জানান, এছাড়া যারা অর্থের অভাবে চিকিৎসা করাতে পারছেন না, তাদেরকে আমরা আমাদের সাধ্য মত চিকিৎসা ব্যবস্থা করছি। এ পর্যন্ত আমরা
৬ জনকে ওপেন হাঁট সার্জারী করিয়ে দিয়েছি।

এক প্রশ্নের জবাবে আরি’র সাধারণ সম্পাদক সাহেনা পারভিন পূনী’ বলেন, মানুষের কষ্টরা আমি ছোট্ট বেলা থেকে বুঝি। সবার ধারা সব কাজ হয়না। আমি নিজের উদোগে এ কাজটি দীর্ঘ দিন ধরে করে আসছি। এটা হলো আমার মনের তৃপ্তি ও আনন্দ। এ কাজ করতে আমার খুব ভালো লাগে।

তিনি আরও বলেন, আমি এইড টু আন্ডার প্রিভিলেজড রিহ্যাবিলিটেশন এন্টিটিভ (অরি) এই সংগঠনের প্রতিষ্ঠাতা এবং বত’মানে সাধারণ সম্পাদক হিসেবে সততা ও নিষ্টার সাথে দায়িত্ব পালন করে আসছি। এ কাজে আমার স্বামী সিভিল ইন্জিনিয়ার মোস্তাফিজুর রহমান , মেয়ে ও মেয়ের জামাই আমাকে সাবি’ক ভাবে সহযোগিতা করছেন।

অপর এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, বেসরকারী উন্নয়ন সংস্হা (অরি) এই সংগঠনের চেয়ারম্যান হিসেবে কাজ করছেন অবসরপ্রাপ্ত সেনা কর্মকর্তা মেজর ডঃ মাশরুর। এছাড়া আমাদের ২০ সদস্য একটি শক্তিশালী কমিটি রয়েছে।

সাহেনা পারভিন পূনী’ আরও জানান, আমি সাভারের রানা প্লাজা ঘটনার সময় আমার সংগঠনের পক্ষ থেকে তখন ১ হাজার লোকের মধ্যে বিভিন্ন ধরনের খাবার ও বিভিন্ন ধরনের এান সামগ্রী বিতরন করেছি।
এছাড়া রোহিঙ্গা ক্যাম্প গিয়েও তাদেরকে সাহায্য সহযোগিতা করেছি।

এক প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, আমার সংগঠনের পক্ষ থেকে প্রতিটি ঈদ, মাহে রমজান, ও শীতে সমাজের অসহায়, দুস্থ ও গরিব মানুষের মধ্যে চাল, চিনি, তেল, সেমাই, দুধ, কম্বল, গরম কাপড় সহ বিভিন্ন ধরনের পন্যসামগ্রী বিতরন করে আসছি।

সমাজের বিত্তবান, ধনী ব্যক্তি ও শিল্পপতিরা যদি আমাদের মত অসহায় গরীব মানুষের পাশে এসে দাঁড়ায় তাহলে, অসহায় ও দুস্থ মানুষের কিছুটা উপকৃত হবে। এছাড়া সমাজের সুবিধাবঞ্চিতদের পূণর্বাসন-উদ্যোগ নিয়েই আমি কাজ করে যাচ্ছি।

এসময় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্হিত ছিলেন,অরি’র সদস্য: ডাঃ নাজমা হক, মোঃ ফজলুল হক খান মোস্তাফিজুর রহমান বেলায়েত খান এমএসটি ফারহানা সাবেরা চৌধুরী মেজর (আরডিডি), এমএস দাউদ রাকিব চৌধুরী রাহাত চৌধুরী সাদিয়া চৌধুরী প্রমুখ।