উত্তরায় বাসা থেকে কেয়ারটেকারের হাত-পা বাঁধা লাশ উদ্ধার

এস, এম, মনির হোসেন জীবন : রাজধানীর উত্তরা ৩ নম্বর সেক্টরের ১০ নম্বর রোডের একটি বাসা থেকে সুবল চন্দ পাল (৪৪) নামের এক ব্যক্তির লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। এ সময় মৃতদেহের হাত-পা বাঁধা ছিল।

রোববার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে ১০ নম্বর রোডের ১০ নম্বর বাড়ির নিচতলা থেকে মৃতদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। নিহত ব্যক্তির গলার ডান পাশে ধারালো অস্ত্রের আঘাত ছিল। ময়নাতদন্তের জন্য মৃতদেহ দুপুরে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠায়।

উত্তরা পশ্চিম থানার উপ পরিদর্শক (এসআই) ইউসুফ আলী বলেন, ‘রোববার ভোরে সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থলে যাই। পরে বাসার নিচতলা থেকে শোয়ানো অবস্থায় মৃতদেহটি দেখতে পাই। মৃতদেহের হাত-পা প্লাস্টিকের রশি দিয়ে বাঁধা ছিল এবং গলার ডান পাশে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কাটা ছিল।’

এসআই আরও জানান, অজ্ঞাতনামা কে বা কারা বাসায় ভেতর ঢুকে রশি দিয়ে হাত-পা বেঁধে গলার ডান পাশে ধারালো অস্ত্র দিয়ে আঘাত করে হত্যা করে। তার স্বজনরা গ্রামে থাকে, তাদের খবর দেওয়া হয়েছে।

এসআই আরও জানান, এই হত্যাকাণ্ডের বিষয়ে এখনও কিছু জানা যায়নি। তবে মনে হচ্ছে রাতের যেকোনো সময় এই হত্যাকাণ্ড ঘটেছে। বাসার আশপাশে সিসি ক্যামেরার ফুটেজ সংগ্রহ করা হচ্ছে।

নিহত সুবল চন্দ্র পাল নেত্রকোনা জেলার পূর্বধলা উপজেলার লাঠুনিয়া গ্রামের হেমচন পালের ছেলে। সে উত্তরার ওই বাসার কেয়ারটেকার ছিল।